সদ্যপ্রাপ্ত :
শ্রদ্ধা ও ভালোবাসায় শহিদদের স্মরণ করেছে ভিক্টোরিয়া কলেজ বাঙ্গড্ডা এডুকেয়ার রেসিডেন্সিয়াল স্কুলের বার্ষিক ক্রীড়া ও সাংস্কৃতিক উৎসবের উদ্বোধন অশ্লীল ছবি-ভিডিওর ভয় দেখিয়ে অনৈতিক প্রস্তাব, ননদ জামাই আটক ছুটি শেষে দুবাইতে ফিরে ব্রেইন স্ট্রোকে নাঙ্গলকোটের যুবকের মৃত্যু বাঙ্গড্ডা আইডিয়াল স্কুলের নবীন বরণ ও এসএসসি পরীক্ষার্থীদের বিদায় অনুষ্ঠান জোড্ডা বাজার সিদ্দিকিয়া আলিম মাদরাসায় দাখিল পরিক্ষার্থীদের মিলাদ ও দোয়া অনুষ্ঠান বাঙ্গড্ডা এডুকেয়ার রেসিডেন্সিয়াল স্কুলে নবীন বরণ অনুষ্ঠান বাঙ্গড্ডা এডুকেয়ার রেসিডেন্সিয়াল স্কুলে এস.এস.সি পরীক্ষার্থীদের বিদায় ও দোয়া অনুষ্ঠান যজ্ঞশাল ভূঁইয়া মার্কেট জামে মসজিদ উদ্বোধন ভিক্টোরিয়া কলেজে ভারতীয় অধ্যক্ষের আগমন
মা’কে গালি দেয়ার প্রতিবাদ করায় পিতা-মাতার সামনে ছেলে’কে জবাই করে হত্যা

মা’কে গালি দেয়ার প্রতিবাদ করায় পিতা-মাতার সামনে ছেলে’কে জবাই করে হত্যা

কেফায়েত উল্লাহ মিয়াজী :

মা’কে গালি দেয়ার প্রতিবাদ করায় কুমিল্লার নাঙ্গলকোটের ঢালুয়া ইউনিয়নের কিনারা গ্রামে শনিবার সকাল ১০টার দিকে বড় ভাই রমজান আলী আপন ছোট ভাই দেলোয়ার হোসেনকে (৩১) জবাই করে হত্যা করার অভিযোগ উঠেছে। হত্যাকান্ডের শিকার দোলোয়ার হোসেন ও ঘাতক রমজান আলী ওই গ্রামের বশির আহম্মেদের পুত্র। এ ঘটনায় ঘাতক বড় ভাই রমজান আলীকে স্থানীয়রা ঢালুয়া এলাকা থেকে আটক করে নাঙ্গলকোট থানা পুলিশে সোপর্দ করে। দেলোয়ার হোসেনকে প্রথমে স্থানীয় মান্নারা বাজারের একটি ক্লিনিকে প্রাথমিক চিকিৎসার জন্য নেয়া হয়, পরে অবস্থা আশংকাজনক হওয়ায় নাঙ্গলকোট উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে গেলে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করেন। নাঙ্গলকোট থানা পুলিশ নিহতের লাশ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য কুমিল্লা মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল মর্গে প্রেরণ করে।

নিহতের পারিবারিক ও থানা সূত্রে জানা যায়, উপজেলার আলিয়ারা গ্রামের বশির আহম্মেদ কিনারা গ্রামে এসে দীর্ঘ ২০ বছর যাবৎ ৪ ছেলে ও ২ মেয়েকে নিয়ে বসবাস করে আসছে। শনিবার সকালে বশির আহম্মেদের ছেলে রমজান আলী তার বৃদ্ধ মাকে গালমন্দ করতে থাকে, এ সময় বশির আহম্মেদের আরেক ছেলে দেলোয়ার হোসেন ঘর থেকে বেরিয়ে মা’কে গালমন্দের প্রতিবাদ করায় বড় ভাই রমজান তার পিতা, মাতা ও বোনের সামনে ধারালো ছুরি দিয়ে দেলোয়ারকে গলায় আঘাত করলে সে মাটিতে লুটিয়ে পড়ে। নিহত দেলোয়ার হোসেন উপজেলার মন্নারা বাজারে স’মিলে কাজ করে জীবিকা নির্বাহ করতেন, তার ১১ ও ৯ বছরের দু’টি কন্যা সন্তান রয়েছে। এছাড়াও তার স্ত্রী বর্তমান অন্তঃসত্ত্বা বলে জানা গেছে। এ হত্যাকান্ডের দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির দাবী জানান নিহতের স্ত্রী পান্না বেগম ও ছোট বোন মনী আক্তার।

নাঙ্গলকোট থানার অফিসার ইনচার্জ ফারুক হোসেন বলেন, নিহতের লাশ ময়না তদন্তের জন্য কুমিল্লা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে প্রেরণ করা হয়েছে। ঘাতক রমজানকে আটক কারা হয়েছে। আইনগত ব্যবস্থা প্রক্রিয়াধীন।

সোশ্যাল মিডিয়ায় শেয়ার করুন...

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

© ২০২০ সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত
কারিগরি সহযোগিতায় : বি-কেয়ার আইটি, বাপ্পি মজুমদার ইউনুস #01711-286173